জমিরুদ্দীন, শেখ


জমিরুদ্দীন, শেখ (১৮৭০-১৯৩৭)  লেখক, ইসলাম প্রচারক। ১২৭৭ বঙ্গাব্দের (১৮৭০) ১৫ মাঘ মেহেরপুর (বৃহত্তর কুষ্টিয়া) জেলার গাংনী উপজেলার গাঁড়াডোব বাহাদুরপুর গ্রামে তাঁর জন্ম। মেহেরপুর আমঝুঁপি খ্রিস্টান স্কুল ও কৃষ্ণনগর নর্মাল স্কুলে অধ্যয়নকালে জমিরুদ্দীন খ্রিস্টান মিশনারিদের দ্বারা প্রভাবিত হন এবং ১৮৮৭ সালে খ্রিস্টধর্মে দীক্ষা গ্রহণ করেন। ১৮৯১ সালে তিনি এলাহাবাদ সেন্ট পলস ডিভিনিটি কলেজ থেকে ধর্মতত্ত্বে স্নাতক ডিগ্রি এবং পরের বছর HGR (Higher Grade Reader) উপাধি লাভ করেন। পরে কলকাতার ডিভিনিটি কলেজে খ্রিস্টধর্মতত্ত্ব, সংস্কৃত, আরবি, গ্রিক ও হিব্রু সাহিত্য ও ব্যাকরণ অধ্যয়ন করেন। তিনি বাংলা ও ইংরেজি ছাড়াও উর্দু, ফারসি ও ল্যাটিন ভাষায়ও পন্ডিত ছিলেন।

খ্রিস্টধর্মে দীক্ষা গ্রহণের আট বছর পর জমিরুদ্দীনের মানসিক অবস্থার পরিবর্তন ঘটে এবং তিনি  খ্রিস্টধর্ম ও মিশনারি কার্যক্রম পরিত্যাগ করে পৈতৃক ধর্ম ইসলামে প্রত্যাবর্তন করেন। অসাধারণ বাগ্মিতা ও বহু ভাষায় পারদর্শিতার কারণে শেখ জমিরুদ্দীন একজন সফল  ইসলাম ধর্ম প্রচারকে পরিণত হন এবং সভাসমিতিতে বক্তৃতা প্রদান ও পত্রপত্রিকায় প্রবন্ধাদি প্রকাশের মাধ্যমে ধর্মীয় প্রচারকার্য চালান।

জমিরুদ্দীন ধর্মতত্ত্ব,  আত্মজীবনী, সামাজিক প্রবন্ধ, অনুবাদ, ভ্রমণকাহিনী ও সৃষ্টিধর্মী একাধিক গ্রন্থ রচনা করেন। আমার জীবনী ও ইসলাম গ্রহণ বৃত্তান্ত, হযরত ইসাকে, মেহের চরিত, ইসলামী বক্তৃতা, শ্রেষ্ঠ নবী হজরত মোহাম্মদ (স.), পাদরীর ধোঁকাভঞ্জন ইত্যাদি তাঁর উল্লেখযোগ্য গ্রন্থ। ধর্মীয় বোধ ছিল জমিরুদ্দীনের রচনার মূল প্রেরণা। ১৯৩৭ সালের ২ জুন তাঁর মৃত্যু হয়।  [মুহম্মদ শামসুল আলম]