কানাই ধাপ


কানাই ধাপ  প্রত্নঢিবিটি  বগুড়া সদর উপজেলার নামুজা ইউনিয়নের বামনপাড়া গ্রামের পূর্বপ্রান্তস্থিত বড়তারা নামে পরিচিত বড় একটি পুকুরের পশ্চিম পাড়ে অবস্থিত। ভূমিরূপ দেখে অনুমান করা যায় যে, পুকুরটি একদা আটোনালা নামে পরিচিত একটি জলধারের অংশবিশেষ ছিল যা অতীতে কালিদহ সাগরের (বিল) সাথে সংযুক্তির চিহ্ন বহন করে। পূর্ব-পশ্চিমে প্রায় ৬০ মি ও উত্তর-দক্ষিণে ১০০ মি বিস্তৃত এবং চারিদিকের ভূমি থেকে ৫ মি উচ্চতা বিশিষ্ট কানাই ধাপ প্রত্নঢিবিটি মহাস্থান দুর্গনগরী থেকে মাত্র ১.৫ কিমি পশ্চিমে অবস্থিত। এর মোট আয়তন প্রায় ০.৬ হেক্টর।

বর্তমানে প্রত্নঢিবিতে জনবসতি এবং বাঁশঝাড় রয়েছে। ঢিবিটির সর্বত্র ইটের টুকরা এবং মৃৎপাত্রের খন্ডাংশ ছড়িয়ে রয়েছে। ঢিবি থেকে মাটি কাটার ফলে পুরনো ইটের দেওয়াল উন্মোচিত হয়েছে। ইটের পরিমাপ হলো ২৬ × ১৮ × ৫ সেমি এবং ১৮ × ১৭ × ৫ সেমি। স্থানীয় অধিবাসীরা প্রত্নঢিবিটি থেকে গুপ্তযুগের অনেকগুলি পোড়ামাটির ফলক সংগ্রহ করেছে, যার বিষয়বস্ত্ত ছিল মা ও শিশু, গণেশ, লক্ষ্মী, কুবের (?) এবং মহাকাব্য রামায়ণ এর বর্ণনামূলক কাহিনীচিত্র। প্রত্নঢিবিটির আরও কিছু গুরুত্বপূর্ণ প্রত্নবস্ত্ত হলো কিছু পোড়ামাটির সীল যেগুলিতে পূর্বাঞ্চলীয় ব্রাহ্মী বা আদি বাংলা অক্ষর খোদিত রয়েছে। প্রত্নঢিবিটিতে একটি ধর্মীয় স্থাপত্য লুকিয়ে আছে বলে অনুমান করা যায়।  [এস.এস মোস্তাফিজুর রহমান]