রায়চৌধুরী, প্রমথনাথ


NasirkhanBot (আলোচনা) কর্তৃক ০৪:৫৫, ৫ মে ২০১৪ পর্যন্ত সংস্করণে (Added Ennglish article link)

(পরিবর্তন) ←পুর্বের সংস্করণ | সর্বশেষ সংস্করণ (পরিবর্তন) | পরবর্তী সংস্করণ→ (পরিবর্তন)

রায়চৌধুরী, প্রমথনাথ  (১৮৭৩-১৯৪৯)  কবি। জন্ম টাঙ্গাইল জেলার সন্তোষে। প্রমথনাথ ছিলেন টাঙ্গাইলের একজন জমিদার। বিশ্ববিদ্যালয়ের উচ্চশিক্ষা লাভ করা সম্ভব না হলেও তিনি নিজের চেষ্টায় ইংরেজি সাহিত্যে বিশেষ দক্ষতা অর্জন করেন। নাটোরের মহারাজা জগদিন্দ্রনাথ রায়ের সহযোগিতায় তিনি গড়ে তোলেন ‘সাহিত্য সঙ্গত’ নামে একটি সাহিত্য প্রতিষ্ঠান। এর মাধ্যমে তাঁর সাহিত্যসাধনার শুরু। তখনকার বিখ্যাত সাহিত্য পত্রিকা সাহিত্য,  প্রবাসীমানসীভারতবর্ষ, প্রদীপ ইত্যাদিতে তাঁর কবিতা প্রকাশিত হয় এবং এর মধ্য দিয়ে তিনি কবিখ্যাতি লাভ করেন। প্রমথনাথ ছিলেন রবীন্দ্রানুসারী কবি। রবীন্দ্রনাথের সঙ্গে তাঁর বিশেষ সৌহার্দ্য ছিল। এর নিদর্শনস্বরূপ  রবীন্দ্রনাথ তাঁর কণিকা কাব্য প্রমথনাথকে উৎসর্গ করেন, আর রবীন্দ্রনাথের নামে তিনি উৎসর্গ করেন তাঁর পদ্মা নামক কাব্য-সংকলন।

প্রমথনাথ কাব্য ও নাটক মিলে ত্রিশের অধিক গ্রন্থ রচনা করেন। তাঁর কাব্যগ্রন্থের মধ্যে পদ্মা (১৮৯৮), যমুনা (১৯০৫), গৈরিক (১৯১৩),স্মরণ (১৯৩৭) ইত্যাদি উল্লেখযোগ্য। নাটকের মধ্যে উলে­খযোগ্য ভাগ্যচক্র (১৯১৩), জয়পরাজয় (১৯১৮), চিতরোদ্ধার (১৯১৮), দিল্লী অধিকার (১৯২৪) ইত্যাদি। ভাগ্যচক্র নাটকটি অভিনীত হলে নাট্যকার হিসেবে তাঁর খ্যাতি ছড়িয়ে পড়ে। সাহিত্যচর্চার পাশাপাশি প্রমথনাথ অনেক জনহিতকর কাজও করেছেন। জাহ্নবী উচ্চ বালিকা বিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা করে তিনি তৎকালে নারীশিক্ষার প্রসারে বিশেষ অবদান রাখেন।  [সমরেশ দেবনাথ]