ভারতী


ভারতী জ্যোতিরিন্দ্রনাথ ঠাকুরের (১৮৪৯-১৯২৫) পরিকল্পনা-প্রসূত মাসিক পত্রিকা। পত্রিকাটি প্রথম প্রকাশিত হয় ১২৮৪ বঙ্গাব্দের ১৫ শ্রাবণ (২৯ জুলাই, ১৮৭৭ খ্রি)। ভারতী-র প্রথম সম্পাদক ছিলেন দ্বিজেন্দ্রনাথ ঠাকুর (১৮৪০-১৯২৬)। তবে কার্যত পত্রিকা প্রকাশের সবরকম দায়িত্ব পালন করেন জ্যোতিরিন্দ্রনাথ ঠাকুর। প্রথম প্রকাশিত সংখ্যার ভূমিকায় দ্বিজেন্দ্রনাথ জ্ঞান আহরণ ও শিক্ষার উন্নতি বিধানের প্রতি আলোকপাত করে এদুটি বিষয়কে পত্রিকার অভীষ্ট লক্ষ্য হিসেবে উল্লেখ করেছিলেন। ভারতী-র প্রথম সংখ্যায় রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর তাঁর তিনটি রচনা প্রদান করেন। অতি দ্রুততার সঙ্গে ভারতী তৎকালীন ভারতবর্ষে প্রকাশিত অন্যান্য পত্রিকাসমূহের মধ্যে এক বিশেষ গুরুত্বপূর্ণ স্থান লাভ করে। প্রগতিশীল চিন্তাধারার বাহক ভারতী একই সঙ্গে সাহিত্য, বিজ্ঞান, ভূগোল, জ্ঞান-বিজ্ঞানের বিভিন্ন মতবাদ, সাম্প্রতিক বিষয়াবলি, আঞ্চলিক ইতিহাস, নাট্যাভিনয়সহ বিভিন্ন বিষয়ে বিশ্লেষণধর্মী আলোচনাকে বিষয়বস্ত্ত হিসেবে গ্রহণ করে। সরলাদেবীর সম্পাদনাধীনকালে পত্রিকাটি জাতীয়তাবাদী ভাবধারার পক্ষে অবিচল সমর্থন বজায় রাখে।

ভারতী পত্রিকার সম্পাদনার ইতিহাস বেশ চমকপ্রদ। দ্বিজেন্দ্রনাথ ১২৮৪ থেকে ১২৯০ বঙ্গাব্দ পর্যন্ত পত্রিকাটির সম্পাদক ছিলেন। পরে এই দায়িত্ব গ্রহণ করেন স্বর্ণকুমারী দেবী। তিনি ১২৯১ থেকে ১৩০১ বঙ্গাব্দ পর্যন্ত পত্রিকাটি সম্পাদনা করেন।

স্বর্ণকুমারী দেবী তাঁর এগারো বছরের দীর্ঘ সম্পাদনাকালীন সময়ে এই চমৎকার ও উন্নতমানের পত্রিকাটির অনন্য বৈশিষ্ট্য রক্ষায় কঠোর পরিশ্রম করেন। নিয়মিত প্রকাশনা, সহজবোধ্য ও প্রাঞ্জল ভাষা এবং ব্যাপক গ্রহণযোগ্যতা ও সমর্থনের কারণে পত্রিকাটি সহজেই সমালোচকদের দৃষ্টি আকর্ষণ করে। ১৩০২-১৩০৪ বঙ্গাব্দ পর্যন্ত সময়ে হিরণ্ময়ী দেবী ও সরলা দেবী যৌথভাবে পত্রিকাটি সম্পাদনা করেন। রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরও এক বছর (১৩০৫ বঙ্গাব্দ) ভারতী-র সম্পাদক ছিলেন। সরলা দেবী ১৩০৬-১৩১৪ বঙ্গাব্দ পর্যন্ত পত্রিকাটির একক-সম্পাদক ছিলেন এবং পরবর্তী ১৩১৫-১৩২১ বঙ্গাব্দ পর্যন্ত সময়ে স্বর্ণকুমারী দেবী পুনরায় সম্পাদনার দায়িত্ব পালন করেন। ১৩২২-১৩৩০ বঙ্গাব্দ পর্যন্ত সময়ে পত্রিকাটির যৌথ সম্পাদক ছিলেন মণিলাল গঙ্গোপাধ্যায় এবং সৌরিন্দ্রমোহন মুখোপাধ্যায়। ১৩৩১ বঙ্গাব্দ থেকে ১৩৩৩ বঙ্গাব্দের কার্তিক পর্যন্ত সরলা দেবীকে পুনরায় পত্রিকাটির দায়িত্বভার গ্রহণ করতে হয়েছিল। ১৩৩৩ বঙ্গাব্দে পত্রিকাটির প্রকাশনা বন্ধ হয়ে যায়। এভাবে ভারতী পত্রিকাটি প্রকাশনার সর্বমোট পঞ্চাশ বছরের মধ্যে ত্রিশ বছরেরও অধিক নারী কর্তৃক সম্পাদিত হয়।

ভারতীর লেখকদের একটি দীর্ঘ তালিকা রয়েছে, যার মধ্যে উল্লেখযোগ্যরা হলেন  অক্ষয়কুমার মৈত্রেয়, অনুরূপা দেবী,  অবনীন্দ্রনাথ ঠাকুর, অমূল্যচরণ বিদ্যাভূষণ,  অমৃতলাল বসুঅসিতকুমার হালদার, ইন্দিরা দেবী চৌধুরাণী,  উপেন্দ্রকিশোর রায়চৌধুরী, কালিদাস রায়, গিরীন্দ্রমোহিনী দাসী,  দক্ষিণারঞ্জন মিত্রমজুমদারদীনেশচন্দ্র সেন, দ্বিজেন্দ্রলাল রায়, নিরূপমা দেবী,  প্রমথ চৌধুরী,  যদুনাথ সরকার,  শিবনাথ শাস্ত্রী,  রাখালদাস বন্দ্যোপাধ্যায়, রামেন্দ্রসুন্দর ত্রিবেদী এবং  রমেশচন্দ্র দত্ত।

ভারতী-র পূর্ণাঙ্গ ইতিহাস ও অনুক্রমণিকা রচনা করেছেন সুশীল দাস (সাহিত্যলোক, কলকাতা)।  [ইন্দ্রজিৎ চৌধুরী]