বিশ্বনাথ উপজেলা


বিশ্বনাথ উপজেলা (সিলেট জেলা)  আয়তন: ২১৪.৫০ বর্গ কিমি। অবস্থান: ২৪°৪৪´ থেকে ২৪°৫৬´ উত্তর অক্ষাংশ এবং ৯১°৩৯´ থেকে ৯১°৫০´ পূর্ব দ্রাঘিমাংশ। সীমানা: উত্তরে সিলেট সদর ও ছাতক উপজেলা, দক্ষিণে বালাগঞ্জ, পূর্বে দক্ষিণ সুরমা উপজেলা, পশ্চিমে ছাতক ও জগন্নাথপুর উপজেলা।

জনসংখ্যা ১৮৯৭৭৫; পুরুষ ৯৬৭৪১, মহিলা ৯৩০৩৪। মুসলিম ১৮০৯৬১, হিন্দু ৮৭৩১, বৌদ্ধ ৫, খ্রিস্টান ১৪ এবং অন্যান্য ৬৪। এ উপজেলায় ৩১ জন আদিবাসীর বসবাস রয়েছে।

জলাশয় সুরমা নদী এবং কোনাউড়া, নলডুবি ও চাউলবুনি বিল উল্লেখযোগ্য।

প্রশাসন বিশ্বনাথ থানা গঠিত হয় ১৯২২ সালে এবং থানাকে উপজেলায় রূপান্তর করা হয় ১৯৮৩ সালে।

উপজেলা
পৌরসভা ইউনিয়ন মৌজা গ্রাম জনসংখ্যা ঘনত্ব (প্রতি বর্গ কিমি) শিক্ষার হার (%)
শহর গ্রাম শহর গ্রাম
- ১১৮ ৪৪৮ ১৪০৪২ ১৭৫৭৩৩ ৮৮৪ ৪৫.৬২ ৩৯.৪৭
উপজেলা শহর
আয়তন (বর্গ কিমি) মৌজা লোকসংখ্যা ঘনত্ব (প্রতি বর্গ কিমি) শিক্ষার হার (%)
১৩.০৬ ১৪০৪২ ৯৭৯ ৪৫.৬২
ইউনিয়ন
ইউনিয়নের নাম ও জিও কোড আয়তন (একর) লোকসংখ্যা শিক্ষার হার (%)
পুরুষ মহিলা
অলংকারী ১০ ৬৪০৬ ১২৩৬৭ ১২৫৪৭ ৪৩.৭২
বিশ্বনাথ  ২১ ৮২৩১ ১৪৬৬১ ১৩৪৫৪ ৪৮.২১
দৌলতপুর ৩১ ৮৩৬৬ ২১৭৪১ ১২৩৯৩ ৩৮.০০
দেওকলস ৪২ ৫৭৭৮ ৮৩৫০ ৭৮৯৪ ৪০.০৭
দশঘর ৫২ ৫০২২ ৯০৫৫ ৮৪৭৩ ৩৮.৯৮
খাজাঞ্চিগাঁও ৬৩ ৬৭৫৪ ১৩৪১৩ ১৩১৭৬ ৪০.৭১
লামাকাজী ৭৩ ৬১৪৬ ১১৯৪২ ১১৪৯৭ ৩৫.৮১
রামপাশা ৮৪ ৫৯০৪ ১৪২১২ ১৩৬০০ ৩২.৭৫

সূত্র আদমশুমারি রিপোর্ট ২০০১, বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো।

BiswanathUpazila.jpg

প্রাচীন নিদর্শনাদি ও প্রত্নসম্পদ সিতুলী দেবীর মন্দির, হাসনরাজার বাড়ি, গৌড় গোবিন্দের সাতপাড়ি দিঘি ও জাহাজের মঞ্জিল।

মুক্তিযুদ্ধের ঘটনাবলি ১৯৭১ সালে পাকবাহিনী এ উপজেলায় ব্যাপক গণহত্যা, লুটপাট ও অগ্নিসংযোগ করে। পাকবাহিনী নারায়ণ সেন, জিতেন্দ্র দাশ, ব্যোমকেশ চৌধুরী, বসন্ত কুমার দাস ও ধীরেন্দ্র কুমার দাস সহ অনেক নিরীহ লোককে নির্মমভাবে হত্যা করে।

ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান  মসজিদ ৩৪৬, মন্দির ১১, মাযার ১।

শিক্ষার হার, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গড় হার ৩৯.৯৪%; পুরুষ ৪৩.৪৯%, মহিলা ৩৬.৩১%। কলেজ ৩, মাধ্যমিক বিদ্যালয় ২৮, প্রাথমিক বিদ্যালয় ১১১, কিন্ডার গার্ডেন ২৩, মাদ্রাসা ২০। উল্লেখযোগ্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান: রামসুন্দর উচ্চ বিদ্যালয় (১৯০৯), চান্দভরাং উচ্চ বিদ্যালয় (১৯১৫), দশঘর এন ইউ উচ্চ বিদ্যালয় (১৯৬৭), বিশ্বনাথ আলীয়া মাদ্রাসা (১৯৬০), সৎপুর দারুল হাদীস আলীয়া মাদ্রাসা (১৯৪৮)।

পত্র-পত্রিকা ও সাময়িকী সাপ্তাহিক: বিশ্বনাথ; মাসিক: উদ্ভাস, বিশ্বনাথ ডাইজেস্ট; ত্রৈমাসিক: প্রগতি।

সাংস্কৃতিক প্রতিষ্ঠান লাইব্রেরি ১, ক্লাব ১৫, খেলার মাঠ ৫।

দর্শনীয় স্থান দশঘরের শ্রী বৈষ্ণবরায়ের সিদ্ধ বকুলতলা, শাহ কালুর মাযার, হাসন রাজার বাড়ি।

জনগোষ্ঠীর আয়ের প্রধান উৎস কৃষি ৪৩.৮৫%, অকৃষি শ্রমিক ৪.২৮%, শিল্প ০.৬৩%, ব্যবসা ১৩.৩৭%, পরিবহণ ও যোগাযোগ ২.১১%, চাকরি ৪.১৬%, নির্মাণ ১.৬৪%, ধর্মীয় সেবা ০.৩৬%, রেন্ট অ্যান্ড রেমিটেন্স ১৫.৮৫% এবং অন্যান্য ১৩.৭৫%।

কৃষিভূমির মালিকানা ভূমিমালিক ৪৪.৭৯%, ভূমিহীন ৫৫.২১%। শহরে ৪৪.২৪% এবং গ্রামে ৪৪.৮৪% পরিবারের কৃষিজমি রয়েছে।

প্রধান কৃষি ফসল ধান, গম, আলু, আখ, পেঁয়াজ, আদা, ছোলা, শাকসবজি।

বিলুপ্ত বা বিলুপ্তপ্রায় ফসলাদি তামাক, পাট, মাসকলাই।

প্রধান ফল-ফলাদি আম, কাঁঠাল, লিচু, জাম, আনারস, সুপারি।

মৎস্য, গবাদিপশু ও হাঁস-মুরগির খামার মৎস্য ৩০, গবাদিপশু ২২, হাঁস-মুরগি ৩৮।

যোগাযোগ বিশেষত্ব পাকারাস্তা ২১ কিমি, কাঁচারাস্তা ৪২২ কিমি; রেলপথ ১৪ কিমি। রেলস্টেশন ২।

বিলুপ্ত বা বিলুপ্তপ্রায় সনাতন বাহন পাল্কি, গরুর গাড়ি, ঘোড়ার গাড়ি।

কুটিরশিল্প স্বর্ণশিল্প, লৌহশিল্প, মৃৎশিল্প, শীতল পাটি, সেলাইয়ের কাজ, বাঁশের কাজ, বেতের কাজ।

হাটবাজার ও মেলা হাটবাজার ৩৮, মেলা ৬। রামপাশা বাজার, বিশ্বনাথ বাজার ও লামাকাজী বাজার উল্লেখযোগ্য।

প্রধান রপ্তানিদ্রব্য   ধান, মাছ, শাকসবজি।

বিদ্যুৎ ব্যবহার এ উপজেলার সবক’টি ইউনিয়ন পল্লিবিদ্যুতায়ন কর্মসূচির আওতাধীন। তবে ৩৫.৩১% পরিবারের বিদ্যুৎ ব্যবহারের সুযোগ রয়েছে।

পানীয়জলের উৎস নলকূপ ৬৫.৪৭%, ট্যাপ ১.৬১%, পুকুর ২৬.৯২% এবং অন্যান্য ৬%।

স্যানিটেশন ব্যবস্থা এ উপজেলার ২৮.৫৫% (শহরে ৪৫.৫৭% এবং গ্রামে ২৭.৬৪%) পরিবার স্বাস্থ্যকর এবং ৬২.৩৬% (শহরে ৩৭.৬৭% এবং গ্রামে ৬৩.৬৮%) পরিবার অস্বাস্থ্যকর ল্যাট্রিন ব্যবহার করে। তবে ৯.০৯% পরিবারের কোনো ল্যাট্রিন সুবিধা নেই।

স্বাস্থ্যকেন্দ্র উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ১, পরিবার পরিকল্পনা কেন্দ্র ৮, উপস্বাস্থ্য কেন্দ্র ৩।

এনজিও আশা, ব্র্যাক, ভার্ড।  [জয়ন্ত সিংহ রায়]

তথ্যসূত্র  আদমশুমারি রিপোর্ট ২০০১, বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো; বিশ্বনাথ উপজেলা সাংস্কৃতিক সমীক্ষা প্রতিবেদন ২০০৭।