বর্ষা


বর্ষা (Rainy Season)  আর্দ্র মৌসুম। যদিও বাংলা বর্ষপঞ্জি অনুসারে আষাঢ়-শ্রাবণ (মধ্য-জুন থেকে মধ্য-আগস্ট পর্যন্ত) দুই মাস বর্ষাকাল, কিন্তু বাস্তবিক ক্ষেত্রে বর্ষা শুরু হয় জুন থেকে এবং অক্টোবর পর্যন্ত এর স্থায়িত্ব। এ সময়েই দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমি বায়ু বাহিত বৃষ্টিপাত ঘটে, যা বাংলাদেশের বার্ষিক মোট বর্ষণের ৮০ শতাংশেরও বেশি এবং এর ফলে সারাদেশ জল-সম্পৃক্ত অবস্থায় থাকে। এসময় অধিকাংশ প্লাবনভূমি এলাকা প্লাবিত হয়ে যায়। স্থানীয় উচ্চতার ওপর নির্ভর করে বর্ষার পানির গভীরতা এবং এর স্থায়িত্ব দেশের বিভিন্ন স্থানে বিভিন্ন রকম হয়ে থাকে। সিলেট, নেত্রকোনা, কিশোরগঞ্জ, গোপালগঞ্জ ও পাবনা জেলার হাওর, বিল, ঝিল-এর মতো নিচু এলাকাগুলোতে বর্ষা সবচেয়ে বেশি স্থায়ী হয় (ছয় মাসের চেয়েও বেশি সময়)। বাংলাদেশের মধ্য অংশে এর স্থায়িত্ব খুবই কম, সর্বোচ্চ তিন থেকে চার মাস। বর্ষা মৌসুমে গ্রামাঞ্চলে নৌকা একটি সাধারণ পরিবহণ মাধ্যম হয়ে ওঠে। বন্যামুক্ত বা অগভীর বন্যাযুক্ত (৩০ সেমি পর্যন্ত গভীর) অঞ্চলের কৃষকদের জন্য বর্ষা মৌসুম খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এসময়ে তারা ধানের বীজতলা ও জমি প্রস্ত্তত করে। বাংলাদেশের মৎসজীবী সম্প্রদায়ের জন্যও বর্ষা মৌসুম অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। এই মৌসুমে জলমগ্ন প্লাবনভূমিগুলো জলজ উদ্ভিদ ও প্রাণীর জন্য এক বিশাল আবাসক্ষেত্রে পরিণত হয়। আম, জাম, কাঁঠাল, আনারস, পেয়ারা, ডেউয়া, চালতা, লটকন, তাল, ইত্যাদি জনপ্রিয় গ্রীষ্মমন্ডলীয় ফল এই মৌসুমে পাওয়া যায়। [মোহা. শামসুল আলম]

আরও দেখুন ঋতু; মৌসুমি বায়ু; বৃষ্টিপাত