"ধর্মসাগর"-এর বিভিন্ন সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য


(Added Ennglish article link)
 
 
১ নং লাইন: ১ নং লাইন:
 
[[Category:Banglapedia]]
 
[[Category:Banglapedia]]
 
'''ধর্মসাগর''' (Dharmasagar)  কুমিল্লা শহরে অবস্থিত একটি বড় দিঘি, আয়তন প্রায় ৯.৩৮১ হেক্টর। প্রাচীন ত্রিপুরার মহারাজ ধর্ম মাণিক্য (১৭১৪-১৭২৯) এলাকাবাসীর প্রয়োজনীয় পানি সহজলভ্য করার উদ্দেশ্যে এ দিঘিটি খনন করান। শুরুতে দিঘির মাঝামাঝি স্থানে একটি মাটির ঢিবি ছিল। দিঘিটির পূর্ব পাড়ে কুমিল্লা স্টেডিয়াম ও কুমিল্লা জেলা স্কুল অবস্থিত। এর উত্তরে রয়েছে কুমিল্লা পৌরপার্ক, রাণীর কুটির, এবং কবি নজরুল ইসলাম স্মরণে নির্মিত একটি দ্বিতল বাড়ী। দিঘির দক্ষিণ-পূর্ব দিকে রয়েছে রাজদেবী মাতৃসদন ও শিশুকল্যাণ প্রতিষ্ঠান। এসব ঐতিহাসিক নিদর্শন ধর্মসাগরকে একটি মনোমুগ্ধকর দর্শনীয় স্থানে পরিণত করেছে। শীতকালে এখানে প্রচুর অতিথি পাখির আগমন ঘটে।  [মোঃ তুহীন মোল্লা]
 
'''ধর্মসাগর''' (Dharmasagar)  কুমিল্লা শহরে অবস্থিত একটি বড় দিঘি, আয়তন প্রায় ৯.৩৮১ হেক্টর। প্রাচীন ত্রিপুরার মহারাজ ধর্ম মাণিক্য (১৭১৪-১৭২৯) এলাকাবাসীর প্রয়োজনীয় পানি সহজলভ্য করার উদ্দেশ্যে এ দিঘিটি খনন করান। শুরুতে দিঘির মাঝামাঝি স্থানে একটি মাটির ঢিবি ছিল। দিঘিটির পূর্ব পাড়ে কুমিল্লা স্টেডিয়াম ও কুমিল্লা জেলা স্কুল অবস্থিত। এর উত্তরে রয়েছে কুমিল্লা পৌরপার্ক, রাণীর কুটির, এবং কবি নজরুল ইসলাম স্মরণে নির্মিত একটি দ্বিতল বাড়ী। দিঘির দক্ষিণ-পূর্ব দিকে রয়েছে রাজদেবী মাতৃসদন ও শিশুকল্যাণ প্রতিষ্ঠান। এসব ঐতিহাসিক নিদর্শন ধর্মসাগরকে একটি মনোমুগ্ধকর দর্শনীয় স্থানে পরিণত করেছে। শীতকালে এখানে প্রচুর অতিথি পাখির আগমন ঘটে।  [মোঃ তুহীন মোল্লা]
 
[[en:Dharmasagar]]
 
  
 
[[en:Dharmasagar]]
 
[[en:Dharmasagar]]

১৫:৪২, ২০ জানুয়ারি ২০১৫ তারিখে সম্পাদিত বর্তমান সংস্করণ

ধর্মসাগর (Dharmasagar)  কুমিল্লা শহরে অবস্থিত একটি বড় দিঘি, আয়তন প্রায় ৯.৩৮১ হেক্টর। প্রাচীন ত্রিপুরার মহারাজ ধর্ম মাণিক্য (১৭১৪-১৭২৯) এলাকাবাসীর প্রয়োজনীয় পানি সহজলভ্য করার উদ্দেশ্যে এ দিঘিটি খনন করান। শুরুতে দিঘির মাঝামাঝি স্থানে একটি মাটির ঢিবি ছিল। দিঘিটির পূর্ব পাড়ে কুমিল্লা স্টেডিয়াম ও কুমিল্লা জেলা স্কুল অবস্থিত। এর উত্তরে রয়েছে কুমিল্লা পৌরপার্ক, রাণীর কুটির, এবং কবি নজরুল ইসলাম স্মরণে নির্মিত একটি দ্বিতল বাড়ী। দিঘির দক্ষিণ-পূর্ব দিকে রয়েছে রাজদেবী মাতৃসদন ও শিশুকল্যাণ প্রতিষ্ঠান। এসব ঐতিহাসিক নিদর্শন ধর্মসাগরকে একটি মনোমুগ্ধকর দর্শনীয় স্থানে পরিণত করেছে। শীতকালে এখানে প্রচুর অতিথি পাখির আগমন ঘটে।  [মোঃ তুহীন মোল্লা]