দিনাজপুর ব্যাপ্টিস্ট মিশন চার্চ


দিনাজপুর ব্যাপ্টিস্ট মিশন চার্চ

দিনাজপুর ব্যাপ্টিস্ট মিশন চার্চ  দিনাজপুর শহরে মিশনারি কার্যক্রম পরিচালনার জন্য উইলিয়ম কেরী ১৭৯৬ সালে এ চার্চ প্রতিষ্ঠা করেন এবং ফার্নান্ডেজ নামক একজন পর্তুগিজ মিশনারিকে এর তত্ত্বাবধায়ক নিয়োগ করেন। পরবর্তী সময়ে (১৭৯৯-১৮০৫) উক্ত চার্চের তত্ত্বাবধানে স্থানীয় ধর্মান্তরিত ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য ২টি ভার্নাক্যুলার বোর্ডিং স্কুল (১টি বালক অপরটি বালিকা) প্রতিষ্ঠিত হয়। প্রতি শুক্রবার ও রবিবারে কেরীর প্রচারবেদী থেকে বাইবেল পাঠ করা হতো। ১৮০০ সালের পর উইলিয়ম কেরী শ্রীরামপুর চলে যান। বর্তমানে বাংলাদেশে ১০টি আঞ্চলিক ব্যাপটিস্ট চার্চ সংঘ আছে। এই চার্চগুলো কেরী কর্তৃক প্রতিষ্ঠিত দিনাজপুর চার্চের পৃষ্ঠপোষকতায়ই গড়ে উঠেছে। ঢাকা থেকে জাতীয় চার্চ পরিষদের সভামন্ডলী কর্তৃক আঞ্চলিক চার্চগুলো পরিচালিত হয়। প্রতিটি চার্চে রয়েছেন একজন আঞ্চলিক তত্ত্বাবধায়ক। উইলিয়াম কেরীর প্রতিষ্ঠিত চার্চ থেকেই বর্তমান দিনাজপুর আঞ্চলিক ব্যাপটিস্ট চার্চ সংঘের কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে।  [মুহম্মদ মুনিরুজ্জামান]