গঙ্গাফড়িং


বিভিন্ন প্রজাতির গঙ্গাফড়িং

গঙ্গাফড়িং (Dragonfly)  Odonatla বর্গের Anisoptera উপবর্গের দিবাচর, সুন্দর, বড় আকারের এক দল পতঙ্গ। এদের চারটি বড়, বহুশিরাযুক্ত, পাতলা ডানা বসে থাকার সময় আনুভূমিক ও শরীরের দৈর্ঘ্য বরাবর সমকোণে থাকে। দেহ লম্বা, সরু এবং অনেক সময় লাল, সবুজ, নীল বা কালো দাগে চিত্রবিচিত্র। চর্বনক্ষম মুখোপাঙ্গে আছে দাঁতসহ মজবুত চোয়াল; শুঙ্গ খাটো। মাথা বেশ বড়, ইচ্ছামতো ঘুরানো যায়। মাথার বেশির ভাগ জুড়ে থাকে বিশাল দু পুঞ্জাক্ষি। গঙ্গাফড়িং প্রায় দু মিটার দূরের বস্ত্ত এবং ৪-১৩ মিটার দূরত্বের চলমান বস্ত্ত দেখতে পায়। পা কাঁটাযুক্ত, ডালপালায় বসার উপযোগী, কিন্তু হাঁটাচলার জন্য নয়। উড়ার সময় এ পতঙ্গের গুটানো পাগুলি ঝুড়ির মতো দেখায় এবং তাতে শিকার ধরে রাখে।

এদের যৌনসঙ্গম অস্বাভাবিক ধরনের; স্ত্রী ও পুরুষ ফড়িং প্রায়ই একসঙ্গে ওড়ে এবং উড়ন্ত অবস্থায়ই মিলন সম্পন্ন করে। স্ত্রী ফড়িং ডিম পানিতে বা পানির আগাছার উপর লাগিয়ে দেয়। একটি স্ত্রী পতঙ্গ ৮০০টি পর্যন্ত ডিম পাড়ে। ডিম ফোটে ১-৩ সপ্তাহের মধ্যে। বাচ্চাদের অপূর্ণ রূপান্তর ঘটে। নিম্ফ পানিতে ১-৫ বছর কাটায়। জলজ ক্ষুদে প্রাণী খায়, বিশেষত মেফ্লাই ও মশার লার্ভা; বড় জাতের গঙ্গাফড়িং-এর লার্ভা মাছের ছোট পোনাও খেতে পারে। বড় হতে হতে এরা প্রায় ১২ বার খোলস পালটায়।

বাংলাদেশের প্রধান গঙ্গাফড়িং প্রজাতিগুলি Aeshnidae, Gomphidae Cordulogastridae ও Libellulidae গোত্রভুক্ত। তবে আজ পর্যন্ত জানা প্রায় ৩০টি প্রজাতির অধিকাংশই Libellulidae ও Aeshnidae গোত্রের।  [মোনাওয়ার আহমাদ]