আহমেদ, মমতাজ উদ্দীন


মমতাজ উদ্দীন আহমেদ

আহমেদ, মমতাজ উদ্দীন (১৯০৩-১৯৭১)  দার্শনিক ও শিক্ষাবিদ। তিনি ১৯০৩ সালের ২৪ ডিসেম্বর ব্রাহ্মণবাড়ীয়ায় জন্মগ্রহণ করেন এবং সেখানেই তিনি তাঁর প্রাথমিক শিক্ষা লাভ করেন। তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় হতে দর্শনশাস্ত্রে ১৯২৬ সালে বি.এ সম্মান ও ১৯২৭ সালে এম.এ ডিগ্রি লাভ করেন। তিনি ১৯৩৭ সালে লন্ডন বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পিএইচ.ডি ডিগ্রি অর্জন করেন।

মমতাজ উদ্দীন আহমেদ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের দর্শন বিভাগে প্রভাষক হিসেবে তাঁর শিক্ষকতা জীবন শুরু করেন। ১৯৩৯ সালে তিনি বিশ্ববিদ্যালয় ত্যাগ করে ঢাকা  কলেজ এর অধ্যক্ষ নিযুক্ত হন। উল্লেখ্য যে, ওই সময় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের বেতন স্কেল সরকারী  কলেজ শিক্ষকদের চেয়ে বেশ কম ছিল। ঢাকা কলেজ-এর দীর্ঘ ইতিহাসে তিনিই প্রথম মুসলিম অধ্যক্ষ। ১৯৪৫ সালে তিনি রাজশাহী কলেজে   বদলী হন।  তিনি ১৯৫০ সাল পর্যন্ত রাজশাহী কলেজে কর্মরত থাকেন।  এবছরই তিনি  জনশিক্ষা দফতরের সহকারী পরিচালক হিসেবে যোগদান করেন। ১৯৫২ সালে একই দফতরে তিনি পরিচালক হিসেবে পদোন্নতি লাভ করেন। ১৯৫৬ সাল পর্যন্ত তিনি এ পদে অধিষ্ঠিত ছিলেন এবং এ বছর তাঁকে পাকিস্তান সরকারের শিক্ষা উপদেষ্টা হিসেবে নিযুক্ত করা হয়। ১৯৫৭ সালে মমতাজ উদ্দীন আহমেদ রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় এর উপাচার্য নিযুক্ত হন।। বিশ্ববিদ্যালয়ে তাঁর অবদানের স্বীকৃতিস্বরূপ কলা ভবনের নাম রাখা হয় ’মমতাজ উদ্দীন কলা ভবন’।

মমতাজ উদ্দীন আহমেদ ১৯৫৮ সালের জাতীয় শিক্ষা কমিশনের সদস্য নির্বাচিত হন। ১৯৬৫ সালে তদানীন্তন পাকিস্তানে ছাত্র কল্যাণ বিষয়ক কমিশনের সদস্য হিসেবে কর্তব্য পালন করেন। তিনি ১৯৬৪ সালে প্রাক্তন পাকিস্তান ন্যাশনাল প্রেস ট্রাস্টের বোর্ড অব ট্রাস্টিজ এর সদস্যরূপেও দায়িত্ব পালন করেন।  তিনি ১৯৬৮ সালে কেন্দ্রীয় বাংলা উন্নয়ন বোর্ডের সদস্য নির্বাচিত হন। ১৯৬৫ সালে তিনি আন্তঃবিশ্ববিদ্যালয় বোর্ডের সভাপতির দায়িত্ব পালন করেন। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সিন্ডিকেট সদস্য এবং ইসলামাবাদ বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনেট সদস্য হিসেবে  তিনি শেষ জীবনে উচ্চ শিক্ষা প্রসারে অবদান রাখেন। ১৯৭১ সালের ১২ সেপ্টেম্বর ঢাকায় তাঁর মৃত্যু হয়। [মাসুদা আহমেদ]