অষ্টকগান


অষ্টকগান  এক প্রকার লোকসঙ্গীত। পশ্চিমবঙ্গের মালদহ ও মুর্শিদাবাদ জেলায় এ গান অধিক প্রচলিত। চৈত্রসংক্রান্তিতে নীলের  গাজন উপলক্ষে তিনদিন ব্যাপী বিভিন্ন ধরনের গান গাওয়া হয়। অষ্টকগান এ গাজন গানেরই শাখাবিশেষ। গাজন গানের বিষয় শিব; অষ্টকগানের বিষয়ও মূলত শিব, তবে রাধাকৃষ্ণের লীলা ও নিমাইসন্ন্যাস প্রসঙ্গও এতে থাকে। সুর, পদবিন্যাস ও গায়নরীতির দিক থেকেও উভয় গানের মধ্যে কিছু পার্থক্য আছে। অষ্ট বা আট সংখ্যার সঙ্গে এ গানের সম্পর্ক কি, তা জানা যায় না। গানের ভাষা আটপৌরে, কিন্তু ছন্দোময় ও আবেগবহুল। খেয়ালের মতো এ গানে স্থায়ী ও অন্তরা দুটি তুক থাকে। ভগ্ন ত্রিপদীর আঙ্গিকে অন্তরা রচিত হয়। শিব-বিষয়ক গানে হাল্কা রসের প্রাধান্য থাকে এবং শিব-পার্বতীর দাম্পত্য জীবনের রূপকে লৌকিক জীবনের ছায়াপাত ঘটে।

অষ্টকগানের দল গঠিত হয় মূলত ১০-১২ বা ততোধিক সংখ্যক শিল্পী নিয়ে। শিল্পীরা দুটি দলে বিভক্ত হয়ে গান পরিবেশন করে। সূত্রধরের নির্দেশে গায়ক-গায়িকাগণ তাঁদের নিজস্ব রীতি-নীতি, বৈশিষ্ট্য এবং ভাবগাম্ভীর্য অনুযায়ী গান পরিবেশন করেন। অষ্টকগানের সঙ্গে কিছুটা নৃত্যেরও সংযোগ থাকে। এ গান পরিবেশনের সময় মূলত ঢোল, হারমোনিয়াম, মন্দিরা, খোল এ ধরনের দেশিয়  বাদ্যযন্ত্র ব্যবহূত হয়।

অষ্টকগান সাধারণত বেশি উপভোগ করে নিম্নবর্ণের হিন্দুরা; বিশেষ করে নমঃশূদ্র, ঘরামি, জেলে প্রভৃতি সম্প্রদায়ের লোকেরা এ গানের প্রধান ভক্ত। এক সময়  খুলনা ও বৃহত্তর  যশোর জেলার গ্রামে-গঞ্জে এ গানের ব্যাপক জনপ্রিয়তা ছিল। বর্তমানে বিভিন্ন কারণে অষ্টকগান প্রায় হারিয়ে যেতে বসেছে। [ওয়াকিল আহমদ]